শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ | ১০ ফাল্গুন ১৪৩০
বেটা ভার্সন
Dhaka Prokash

পাতা ফাঁদে পা দেবে না আওয়ামী লীগ

বিএনপির পাতা ফাঁদে কোনোভাবেই পা দেবে না ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। ইতোমধ্যে দলীয় হাইকমান্ড থেকে মাঠ পর্যায়ে এ বিষয়ে সতর্ক করে দেওয়া হয়েছে। বিএনপির চলমান আন্দোলন অত্যন্ত সতর্কতার সঙ্গে মোকাবিলা করবে আওয়ামী লীগ— এমনটাই বলছেন দলের শীর্ষ নেতারা। একই সঙ্গে তারা বলছেন, সভা-সমাবেশের নামে লাঠিসোঁটা নিয়ে বিএনপিকে কোনো ধরনের অরাজকতাও করতে দেওয়া হবে না। যেকোনো ধরনের নাশকতা জনগণকে সঙ্গে নিয়ে প্রতিহত করা হবে।

আওয়ামী লীগ নেতারা বলছেন, জাতীয় নির্বাচনকে ঘিরে রাজনৈতিক অস্থিরতা সৃষ্টি করতে মরিয়া বিএনপিসহ তাদের মিত্র দলগুলো। এরইমধ্যে ঢাকাসহ ১০ বিভাগীয় শহরে গণসমাবেশের ঘোষণা দিয়েছে বিএনপি। এ সব সমাবেশে সরকার বিরোধী জনসমর্থন তুলে ধরার পাশাপাশি দেশে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করাই মূল উদ্দেশ্য। বিভাগীয় শহরে গণসমাবেশের কথা বললেও বিএনপির প্রধান টার্গেট রাজধানী ঢাকাকে ঘিরে। শুধুমাত্র ঢাকা নিয়ন্ত্রণে রাখতে পারলেই পুরো দেশের রাজনৈতিক প্রেক্ষাপট পাল্টে যাবে বলে মনে করে বিএনপিসহ অন্যান্য দল।

বিএনপির এই কর্মসূচির বিষয়ে অবগত ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ও সরকারের গোয়েন্দা সংস্থাগুলোও। বিভিন্ন মহলে সহজ বার্তা রয়েছে বিএনপি ঢাকাতে বড় ধরনের অরাজকতা সৃষ্টি করতে পারে। সেজন্য ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সতর্ক দৃষ্টি রেখেছে বিএনপির সব কর্মসূচিতে।

সরকারের বিভিন্ন মহলে তথ্য রয়েছে, সরকারের বিরুদ্ধে দফায় দফায় আন্দোলনের হুমকি দিয়েও কিছু করতে পারেনি বিএনপি। তাই এবার তারা সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে ভিন্ন পথ খুঁজতে পারে। বিএনপি চাইবে সরকারের সাফল্যকে ম্লান করতে মানুষের মধ্যে ভুল বার্তা পৌঁছে দিতে। গণসমাবেশ বা মিছিল-মিটিং করার নামে কোথাও বড় ধরনের নাশকতা বা হামলা করে আওয়ামী লীগের উপর দায় চাপাতে চায় বিএনপি এমন তথ্যও রয়েছে সরকারের কাছে।

এই পরিস্থিতিতে সরকারি দল আওয়ামী লীগের হাই কমান্ডের নির্দেশ কোনোভাবেই বিএনপির পাতা ফাঁদে পা দেওয়া যাবে না। আওয়ামী লীগকে অত্যন্ত সতর্কতার সঙ্গে পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে হবে। তবে ফাঁদে পা না দেওয়ার অর্থ এই না যে, বিএনপি হামলা করলে আওয়ামী লীগ মুখ বুঝে সহ্য করবে। দেশের কোথাও কোনো নাশকতা করলে জনগণের জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সরকার কঠোর হবে— বলেন আওয়ামী লীগ নেতারা।

ক্ষমতাসীন দল হিসেবে আওয়ামী লীগ মানুষের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে যে কোনো ধরনের হামলা প্রতিহত করতে মাঠে থাকবে। বিএনপিকে ফাঁকা মাঠে তাফালিং করতে দেবে না। তবে আওয়ামী লীগের হাই কমান্ডের নির্দেশ অযাচিতভাবে বিএনপির সভা সমাবেশে হামলা বা আক্রমণ করা যাবে না।

বিএনপির আন্দোলন নিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বরাবরই বলে আসছেন আওয়ামী লীগ মাঠে আছে, থাকবে। তবে আওয়ামী লীগ কখনো আক্রমণ করবে না, যতক্ষণ না পর্যন্ত আক্রান্ত হয়। আক্রান্ত হলে এর জবাব দিতে প্রস্তুত।

ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগ সতর্ক অবস্থায় আছে, সক্রিয় আছে। সতর্ক অবস্থায় সংযমী হয়ে আমরা থাকব রাজপথে। আমরা রাজপথে ছিলাম, আন্দোলন করে রাজপথ থেকে ক্ষমতায় এসেছি। তাই আন্দোলনের ভয় আওয়ামী লীগকে দেখাবেন না।

বিএনপির আন্দোলনের বিষয়ে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেছেন, বিএনপিকে বিশ্বাস করা যায় না। তারা আগেও আগুন-সন্ত্রাস করেছে। মানুষ পুড়িয়ে মেরেছে। জান-মাল ধ্বংস করেছে। বিএনপি আবার আগুন-সন্ত্রাস করতে মাঠে নেমেছে। বিএনপি কোনো কর্মসূচি শান্তিপূর্ণ করে না। জনগণের জান-মালের নিরাপত্তা স্বার্থে তাদের আর সুযোগ দেওয়া যাবে না।

এ বিষয়ে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম ঢাকাপ্রকাশ-কে বলেন, আওয়ামী লীগ মাঠে আছে, মাঠে থাকবে। নির্বাচনের আগে অনেক ষড়যন্ত্র হবে অনেক কিছুই ঘটাতে চাইবে। আওয়ামী লীগ কোনো ফাঁদে পা দেবে না। সরকারের সাফল্যকে ম্লান করতে ষড়যন্ত্রকারীরা অনেক কিছুই করতে চাইবে। এ বিষয়ে সতর্ক দৃষ্টি রাখা হয়েছে। জনগণের জান-মালের নিরাপত্তা দেওয়ার দায়িত্ব সরকারের। তাই জনগণের জান-মালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে যা করার সেটা করবে সরকার।’

এনএইচবি/আরএ/

মহাসড়কের পাশে ১ দিনে সাড়ে ৩ হাজার স্থাপনা উচ্ছেদ

ছবি: সংগৃহীত

গাজীপুরের শ্রীপুরে জয়দেবপুর-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদে অভিযান চালিয়েছে প্রশাসন ও সড়ক জনপথ বিভাগ। আজ শুক্রবার সকাল নয়টা থেকে দুপুর আড়াইটা পর্যন্ত চলে এই অভিযান।

মহাসড়কের এমসি, নয়নপুর ও জৈনাবাজর এলাকায় উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় মহাসড়কের পাশে গড়ে উঠা বাজার, দোকানসহ প্রায় সাড়ের তিন হাজার স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়। গুড়িয়ে দেওয়া হয় সকল অবৈধ স্থাপনা। অভিযানে নেতৃত্ব দেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইএনও) শামীমা ইয়াসমীন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) আল মামুন ও সড়ক ও জনপথ বিভাগের উপবিভাগীয় প্রকৌশলী মো.সোহেল মিয়া।

জানা যায়, জয়দেবপুর-ময়মনসিংহ মহাসড়কের বিভিন্নস্থানে হাজার হাজার অবৈধ স্থাপনা গড়ে উঠেছে। আজ সকাল নয়টা থেকে উপজেলার এমসি বাজার এলাকায় উচ্ছেদ অভিযান শুরু করে উপজেলা প্রশাসন। পরে দুপুর আড়াইটায় জৈনাবাজার এলাকায় এসে শেষ হয় এই অভিযান। উচ্ছেদের খবর পেয়ে কেউ স্বেচ্ছায় তাদের মালামাল সরিয়ে নেয়। অনেকে দোকান বন্ধ করে পালিয়ে যায়। বন্ধ থাকা স্থাপনাগুলো গুড়িয়ে দেওয়া হয়। কিছু স্থায়ী স্থাপনাও ভেঙে দেওয়া হয়েছে।

সড়ক ও জনপথ বিভাগের উপবিভাগীয় প্রকৌশলী মো.সোহেল মিয়া বলেন, ‘জয়দেবপুর- ময়মনসিংহ মহাসড়কের শ্রীপুর অংশের ৩টি স্থানে অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সব স্থানের অবৈধ বাজার উচ্ছেদ করা হয়। মহাসড়কের সকল অংশে গড়ে উঠা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হবে।’

শ্রীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শামীম ইয়ামিন বলেন, ‘সকাল থেকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সদস্য উপজেলা প্রশাসনের কর্মচারীদের নিয়ে জয়দেবপুর- ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করে। অভিযানে সড়কের পাশে অবৈধভাবে গড়ে ওঠা প্রায় সাড়ে তিন হাজার অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। পরে যাতে মহাসড়কে পাশে কোনো ধরনের অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ করতে না পারে সে জন্য প্রশাসন প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেবে।’

কোনো প্রশ্নফাঁসের ঘটনা ঘটেনি : ঢাবি উপাচার্য

ছবি: সংগৃহীত

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল বলেছেন, তিনদিন ধরে অনলাইন মাধ্যমে একদল প্রতারক চক্র ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের প্রতারিত করার চেষ্টা করছে। বাস্তবে কোনো প্রশ্নফাঁসের ঘটনা ঘটেনি।

এই চক্রের মূল কাজ হলো আমাদের ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী ও অভিভাবক যারা এ সম্পর্কে জানেন না, তাদের কাছ থেকে অর্থ হাতিয়ে নেওয়া। এজন্যই তারা প্রশ্নফাঁসের গুজব ছড়াচ্ছে।

শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) দুপুর পৌনে ১২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদ ভবনে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

ঢাবি উপাচার্য বলেন, প্রতারক চক্রটি সাধারণ মানুষকে বোকা বানিয়ে টাকা হাতানোর চেষ্টা করছে। আপনাদের অনেক সাংবাদিকও তাদের সাথে কথা বলেছেন। সেই চক্রটি প্রশ্নের বিনিময়ে আপনাদের কাছ থেকেও অগ্রিম টাকা চাচ্ছে। এ পর্যন্ত এই চক্রের হাতে প্রতারিত হওয়ার কোনো অভিযোগ আমরা পাইনি। আমরা সংবাদ মাধ্যমগুলোতে সবাইকে এই প্রতারক চক্র থেকে সতর্ক থাকার কথা জানিয়েছি। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সাথেও আমাদের কথা হয়েছে। আমরা আশা করি, খুব দ্রুত চক্রটি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে গ্রেপ্তার হবে।

তিনি বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা, আইন ও সামাজিক বিজ্ঞান ইউনিটের সমন্বয়ক ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক জিয়া রহমান আমার সাথে এবং দুইজন উপ-উপাচার্য, ট্রেজারার, পরীক্ষা উপদেষ্টা ও প্রক্টরিয়াল টিমের সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখছেন। আমরা সার্বক্ষণিক সতর্ক থাকছি যেন প্রতারক চক্রটি এবারের ভর্তি পরীক্ষাকে কোনোভাবেই প্রভাবিত করতে না পারে।

উপাচার্য বলেন, পরীক্ষা শান্তিপূর্ণভাবে হয়েছে। বেলা ১১টায় ঢাকাসহ দেশের আটটি বিভাগীয় শহরে একযোগে পরীক্ষা হয়েছে। গতকাল রাত ও আজ সকালে সব বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ও ভর্তি কমিটির সংশ্লিষ্টদের সাথে আমার কথা হয়েছে। কোথাও কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি।

উল্লেখ্য, আজ ২৩ ফেব্রুয়ারি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষের আন্ডারগ্র্যাজুয়েট ভর্তি পরীক্ষা কলা, আইন ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদ তথা ‘খ’ ইউনিটের পরীক্ষা শুরু হয়। বেলা ১১টায় পরীক্ষা শুরু হয়ে দুপুর সাড়ে ১২টায় শেষ হয়।

‘খ’ ইউনিটের পরীক্ষায় দুই হাজার ৯৩৪টি আসনের বিপরীতে আবেদন পড়েছে এক লাখ ২২ হাজার ২৭৯টি। সে হিসাবে প্রতিটি আসনের জন্য ৪২ জন শিক্ষার্থী লড়াই করছেন।

পরীক্ষায় সময় ছিল এক ঘণ্টা ৩০ মিনিট। এর মধ্যে ৬০ নম্বরের এমসিকিউ অংশের জন্য বরাদ্দ ছিল ৪৫ মিনিট। ৪০ মার্কের লিখিত অংশের জন্য বরাদ্দ ছিল ৪৫ মিনিট।

সৈয়দপুরের চেয়েও বড় রেল কারখানা হবে রাজবাড়ীতে: রেলমন্ত্রী

ছবি: সংগৃহীত

রেলপথ মন্ত্রী জিল্লুল হাকিম বলেছেন, ১০৫ একর জায়গা নিয়ে রাজবাড়ীতে আরেকটি রেল কারখানা করা হবে। যা সৈয়দপুর কারখানার চেয়েও বড়। এখানে সকল প্রকার মেরামত ও বগি তৈরির কারখানাও করা হবে।

শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে বেনাপোল এক্সপ্রেসে ঢাকা থেকে রাজবাড়ী এসে তিনি এ কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, রেল হচ্ছে সবচেয়ে শস্তা পরিবহন। মালামাল পরিবহনেও রেলওয়ে বগি শস্তায় সার্ভিস দেয়। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে দেশের প্রতিটি জেলায় রেল সংযোগ দেওয়া হবে। এছাড়া দ্রুত সময়ের মধ্যেই ভাঙ্গা থেকে বরিশাল হয়ে পায়রা বন্দরে রেল যাবে। এজন্য রেলের কোচ ও ইঞ্জিন আমদানি করা হয়েছে। আরও কিছু আমদানি করা হবে।

এ সময় জেলা প্রশাসক আবু কায়সার খানসহ জেলা পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং রেলওয়ে ও জেলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

সর্বশেষ সংবাদ

মহাসড়কের পাশে ১ দিনে সাড়ে ৩ হাজার স্থাপনা উচ্ছেদ
কোনো প্রশ্নফাঁসের ঘটনা ঘটেনি : ঢাবি উপাচার্য
সৈয়দপুরের চেয়েও বড় রেল কারখানা হবে রাজবাড়ীতে: রেলমন্ত্রী
মাহির ছবি প্রকাশ করে যা বললেন তার স্বামী
বিচার বিভাগের স্বচ্ছতা নিশ্চিতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ সরকার: রাষ্ট্রপতি
গাজায় ক্ষুধা-অপুষ্টির নিষ্ঠুরতায় ভুগছে হাজার হাজার মানুষ: জাতিসংঘ
টাঙ্গাইলে ২০০ সুবিধাবঞ্চিত শিশুর হাতে বিনামূল্যে বই বিতরণ
পাকিস্তানে নির্বাচনে কারচুপির বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টে যাবে পিটিআই
শান্তিতে নোবেল পুরস্কারের জন্য মনোনীত হলেন ইলন মাস্ক
ভোটার টানতে কন্ডমের প্যাকেটে দলীয় প্রতীক ছাপিয়ে বাড়ি বাড়ি বিলি
ভালোবাসার মাসে মা হলেন মিথিলা, বাবা সৃজিত
মাকে শেষ বিদায় দিতে এসে সড়কেই প্রাণ গেল ইতালি প্রবাসীর
আগামীতে পেঁয়াজ আমদানি করতে হবে না : প্রধানমন্ত্রী
'সহায়তা অব্যাহত রাখবে বিশ্বব্যাংক'
ডিবিতে ৫০ মিনিট কি করলেন নিপুন
পুলিশ পদক পেলেন ৪০০ জন কর্মকর্তা
এক তরুণীকেই ১০০ বারের বেশি ধর্ষণ !
পুতিনকে কুকুরের বাচ্চা বলায় বাইডেনকে যা বললেন ক্রেমলিন
সাকিবকে নিয়ে দুঃসংবাদ দিলো বিসিবি
গাজায় আবাসিক বাড়িতে হামলা, নিহত কমপক্ষে ৪০ ফিলিস্তিনি