হাল ছাড়ছে না ডেনমার্ক

৩০ নভেম্বর ২০২২, ০১:৫৮ এএম | আপডেট: ৩১ জানুয়ারি ২০২৩, ০২:১১ এএম


হাল ছাড়ছে না ডেনমার্ক

দুই ম্যাচে মাত্র এক পয়েন্ট পেয়েছে ডেনমার্ক। আগামীকাল গ্রুপপর্বে তাদের শেষ ম্যাচ অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে, যারা ৩ পয়েন্টে ‘ডি’ গ্রুপে সুবিধাজনক স্থানে (টেবিলের দুইয়ে) আছে। নকআউট নিশ্চিত করতে কাল আল জানুবে সকারুদের হারাতেই হবে তিনে থাকা ড্যানিশদের।

এই গ্রুপ থেকে সবার আগে শেষ ষোলো নিশ্চিত করেছে ফ্রান্স। কাল ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নদের মুখোমুখি হবে তিউনিশিয়া। যদি ম্যাচটি হেরে যায় আফ্রিকান দলটি, তাহলে জিতলেই পরের রাউন্ডে চলে ডেনমার্ক। যদি ড্র করে ড্যানিশরা, তবে নকআউটে খেলবে অস্ট্রেলিয়া। মজার বিষয় হলো দুটো ম্যাচই শুরু হবে বাংলাদেশ সময় রাত ১টায়।

মঙ্গলবার (২৯ নভেম্বর) সংবাদ সম্মেলনে ডেনমার্ক কোচ ক্যাসপার হুলমান্ড বলেন, ‘অবশ্যই ফ্রান্স-তিউনিসিয়া ম্যাচে আমাদের চোখ থাকবে। তবে সবার আগে আমাদের ম্যাচ জিততে হবে এবং আশা করি এটাই যথেষ্ট হবে। যদি দেখা যায় যে এটা যথেষ্ট নয়, কারণ তিউনিশিয়া জিতেছে এবং কিছু গোল করেছে, তাহলে আমাদেরও তেমন কিছু করতে হবে। অবশ্যই আমাদের সেই সামর্থ্য আছে।’

ড্যানিশরা তাদের সামর্থ্যের প্রমাণ দিতে পারলে কপাল পুড়বে অস্ট্রেলিয়ার। তাই সর্বোচ্চ সতর্ক থাকবে সকারুরা- এমনটা উল্লেখ করে অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক ম্যাথু লেকি বলেছেন, ‘নকআউটে ওঠতে একটি ম্যাচ বাকি। সেখানে থাকার জন্য আমরা কয়েক বছর ধরে কাজ করেছি.... প্রধান অনুভতিগুলা হলো প্রেরণা এবং উদ্দীপনা। আমরা জানি আমাদের কী করতে হবে।’

ম্যাচ ফ্যাক্ট
* বিশ্বকাপে দ্বিতীয়বার মুখোমুখি হবে অস্ট্রেলিয়া এবং ডেনমার্ক। ২০১৮ সংস্করণে প্রথম দেখায় গ্রুপপর্বের ম্যাচে ১-১ গোলে ড্র করেছিল দুই দল।

* সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ডেনমার্কের বিপক্ষে চার ম্যাচে মাত্র একটিতে জিতেছে অস্ট্রেলিয়া (১ ড্র, ২ হার)। ২০১০ জুনে প্রীতি ম্যাচে সকারুরা জিতেছিল ১-০ গোলে।

* বিশ্বকাপে ইউরোপিয়ান দলের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়া তাদের সবশেষ ১১ ম্যাচের ৮টিতে হেরেছে অস্ট্রেলিয়া (১ জয়, ২ ড্র)। একটি ম্যাচেও ক্লিনশিট রাখতে পারেনি তারা।

* ডেনমার্ক বিশ্বকাপে তাদের সবশেষ পাঁচ ম্যাচের একটিতেও জয়ের দেখা পায়নি (৪ ড্র, ১ হার)।

* বিশ্বকাপে ছয় অংশগ্রহণে দ্বিতীয়বারের মতো নকআউট খেলার স্বপ্ন দেখছে অস্ট্রেলিয়া। প্রথমবার খেলেছিল ২০০৬ সালে সংস্করণে।

* দ্বিতীয়বারের মতো ব্যাক-টু-ব্যাক বিশ্বকাপে নকআউট খেলার অপেক্ষায় ডেনমার্ক। এর আগে ১৯৯৮ এবং ২০০২ সালে প্রথম রাউন্ডের বাধা টপকে গিয়েছিল ড্যানিশরা।

/এএস